নওগাঁর মান্দায় মামার বিয়ে খেতে যেয়ে পানিতে ডুবে ভাগ্নের মর্মান্তিক মৃত্যু!

নওগাঁ: নওগাঁর মান্দায় মামার বিয়ে খেতে যেয়ে পানিতে ডুবে অারিফুল ইসলাম (৬) নামে এক শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে।

ঘটনাটি ঘটেছে মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার গোটগাড়ী -এনায়েতপুর গ্রামে।

মৃত অারিফুল (৬) গনেশপুর ইউপির নীলকুঠি মীরপুর গ্রামের সাইফুল ইসলামের ছেলে।

স্থানীয়রা জানায়, গতকাল সকালে অারিফুল তার মায়ের সঙ্গে প্রসাদপুর ইউপির গোটগাড়ুিগোটগাড়ী এনায়েতপুর স্লুইসগেট সংলগ্ন মামার বিয়ে খেতে নানার বাড়িতে বেড়াতে যায়। অাজ মঙ্গলবার দুপুরে ছিলো নিহতের মামার বৌভাত অনুষ্ঠান। কিন্তু অাজকের এই দিনে ভাগ্নের হৃদয় বিদারক মর্মান্তিক মৃত্যু কিছুতেই মেনে নেয়ার মতো না। কিন্তু বিধাতার লিখন,না যায় খন্ডন। কি অার করার, কপালে যা ছিলো, তা তো, হবেই। মূহুর্তের মধ্যেই স্বজনদের অাহাজারিতে অাকাশ বাতাস যেনো ভারি হয়ে ওঠে।

এ সময় তার মা ভাইয়ের বিয়ে বাড়ির লোকজনের সঙ্গে কথা বলছিলো। এ সুযোগে ওই বাড়ির শিশুদের সঙ্গে উঠানের নিচে খেলতে যায় অারিফুল।

এক পর্যায়ে সবার অজান্তে উঠানের পাশে স্লুইস গেইটের নিচে স্থানীয় অন্য ছেলেদের সাথে খাড়ির পানিতে নেমে ডুবে যায় অারিফুল ইসলাম।

কিছুক্ষণ পর সাথে থাকা ওই দুইজন ছেলেরা তাকে দেখতে না পাওয়ায় তারা চিৎকার করতে থাকে। এই বলে যে, অামাদের সাথে থাকা অারিফুল কোথায় গেলো? ওকে দেখছি না,তো;এমতাবস্থায় তার মা তাকে খুঁজে না পেলে বাড়ির সবাই তাকে খুঁজতে থাকে। অবশেষে তাকে স্লুইস গেইটের নিচে তাকে পানিতে ভাসতে দেখে। এ সময় আশপাশের লোকজন তাকে স্লুইসগেটের নিচের পানি থেকে উদ্ধার করে।

শিশুটিকে হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই মারা যায় সে । এ ঘটনায় ওই শিশুর পরিবারে শোকের ছায়া নেমেছে। পরবর্তীতে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে তার বাবা মা নিজ বাড়িতে নিয়ে এসে দাফন কাফনের ব্যাবস্থা করেন।