ডামুড্যায় বাস খাদে, নিহত ৩ আহত ২৫

ডামুড্যা: শরীয়তপুরের ডামুড্যা উপজেলায় বাস খাদে পড়ে তিন জনের নিহতের খবর পাওয়া গেছে। আহত হয়েছেন অন্তত ২৫ জন। এর মধ্যে হতাহতদের উদ্ধার করতে গিয়ে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে একজনের মৃত্যু হয়।
মঙ্গলবার সকাল সোয়া ৯টার দিকে উপজেলার খেজুরতলা এলাকায় ডামুড্যা-শরীয়তপুর সদর সড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।
নিহত ব্যক্তিরা হলেন- উপজেলার সিড্যা ইউনিয়নের সিড্যা গ্রামের নুরুজ্জামান মুন্সীর ছেলে কামরুজ্জামান মাহমুদ মুন্সী (৪৫), দক্ষিণ ডামুড্যা গ্রামের তমিজউদ্দিন পাইকের ছেলে ইয়াকুব পাইক (৮০) ও ডামুড্যা পৌরসভার কুলকুড়ি গ্রামের খালেক মোল্যার ছেলে জুলহাস মোল্যা (২৮)।
পুলিশ ও স্থানীয়দের তথ্যমতে, মঙ্গলবার সকাল সোয়া ৯টার দিকে ডামুড্যা থেকে একটি বাস দ্রুতগতিতে শরীয়তপুর সদরের দিকে যাচ্ছিল। ডামুড্যা খেজুরতলা এলাকায় পৌঁছালে চালক নিয়ন্ত্রণ হারান। এতে বাসটি সড়কের পাশের খাদে পড়ে যায়। ঘটনাস্থলেই নিহত হন কামরুজ্জামান এবং পরে গুরুতর আহত অবস্থায় উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা নেওয়ার সময় মারা যান ইয়াকুব।
পরে দুর্ঘটনায় হতাহতদের উদ্ধার করতে এসে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান জুলহাস।
এছাড়া বাসে থাকা অন্তত ২৫জন যাত্রী আহত হয়েছেন। পরে পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিসের লোকজন এসে হতাহতদের উদ্ধার করে।
দুর্ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (গোসাইরহাট সার্কেল) মো. মোহাইমিনুল ইসলাম বলেন, কামরুজ্জামান ও ইয়াকুব দুর্ঘটনায় মারা যান।
মরদেহ  ও আহতদের উদ্ধার করতে গিয়ে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান খালেক। আহত লোকজনকে ডামুড্যা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও বিভিন্ন ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়েছে।