সখিপুরে সড়কের পাশের গাছ সরকারি ছুটির দিনে চুরি হয়

সখিপুর: শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলার সখিপুরে রাতের আঁধারে ও সরকারির ছুটির দিনে রাস্তার পাশের সরকারি গাছ চুরি হয় বলে অভিযোগ রয়েছে। শুক্রবার কুয়াশাচ্ছন্ন ভোরে সরকারি সড়কের পাশ থেকে গাছ কেটে নেয়ার সময় সখিপুর থানা পুলিশের হাতে কেটেফেলা বিপুল পরিমান গাছ জব্দ হয়েছে।
আটক হওয়া গাছ সখিপুর ইউনিয়নের নৈমদ্দিন সরদার কান্দি গ্রামের জসিম উদ্দিন সরদার কেটেছেন বলে যানা যায়। এরপূর্বেও বড় আকারের আরও ৮টি গাছ অভিযুক্ত জসিম উদ্দিন সরদার কেটে নিয়েছেন বলে জানাগেছে।
স্থানীয়রা জানায়, জসিম উদ্দিন সরদার তার অপর ভাইদের নিয়ে কার্তিকপুর-সখিপুর সড়কের ৪৭ নং শরীফিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সংলগ্ন সরকারি সড়ক থেকে ছুটিরদিনের ভোররাত থেকে গাছ কেটে নেয়। ১৭ জানুয়ারী শুক্রবার কুয়াশাচ্ছন্ন ভোরে শ্রমিক নিয়ে গাছ কেটে নিতে থাকে জসিম উদ্দিন সরদার। সখিপুর থানা পুলিশ সংবাদ পেয়ে এসে কেটেফেলা গাছের ১৬টি গুড়ি জব্দ করে। এরপূর্বেও কার্পেটিং সড়কের মধ্যে থেকে বড় বড় আরও ৮টি মেহগনি গাছ কেটে নিয়েছে জসিম উদ্দিন সরদার ও তার ভাইরা। নিজেদের রেকর্ডীয় জমির মধ্য দিয়ে রাস্তা গেছে আর সেই রাস্তা থেকে গাছ কেটেছেন বলে দাবী করেন জসিম উদ্দিন সরদার।
জসিম উদ্দিন সরদারের চাচাতো ভাই  নাজিম উদ্দিন সরদার জানায়, আমাদের জমি ছিল এখন সেখানে সরকারি রাস্তা। সেই সরকারি রাস্তা থেকে গাছ কাটা অপরাধ তা আমরা জানি। তাই আমরা সরকারি রাস্তার গাছ কাটি না। যারা সরকারের আইন মানে না তারা রাতদিন করে রাস্তার পাশ থেকে গাছ কেটে নেয়। সরকারি রাস্তার পাশ থেকে গাছ কাটা যার যার ব্যক্তিগত বিষয়।
এ বিষয়ে সখিপুর থানা অফিসার ইনচার্জ মো. এনামুল হক বলেন, সরকারি রাস্তার পাশ থেকে গাছ কেটে নিচ্ছে মর্মে ভেদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী অফিসার আমাকে অবগত করেন। আমি তাৎক্ষণিক পুলিশ পাঠিয়ে কেটে ফেলা গাছ জব্দ করে ইউএনও স্যারকে প্রতিবেদন পাঠিয়েছি। ইউএনও স্যারের নির্দেশ মতে পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।