অনির্দিষ্টকাল বন্ধ শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়িতে ফেরি চলাচল, দুর্ভোগ সীমাহীন

34
মুন্সীগঞ্জ : মুন্সীগঞ্জের শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী নৌরুটে অনির্দিষ্টকালের জন্য সব ধরনের ফেরি চলাচল বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে। এতে দুর্ভোগ চরম রূপ ধারণ করেছে।
সোমবার (১৪ সেপ্টেম্বর) যাত্রীরা ঘাটে এসে পড়ছেন বিড়ম্বনায়। অনেকে গাড়ি রেখে ঝুঁকি নিয়ে লঞ্চ-স্পিড বোটে করে পদ্মা পার হচ্ছেন। আবার অনেকে ফিরে যাচ্ছেন। তবে পণ্যবাহী ট্রাক চলাকরা ঘাটেই অপেক্ষায় রয়েছেন।
এদিকে নাব্য ফেরাতে লৌহজং টার্নিং চ্যানেলে চলছে ড্রেজিং। তবে কবে নাগাদ ফেরি সচল হবে তা নিশ্চিত করতে পারেনি ঘাট কর্তৃপক্ষ। ৯ দিন বন্ধ থাকার পর সীমিত চালুর দুদিনের মাথায় ফেরি আবার বন্ধ হয়ে যাওয়ায় ক্ষুব্ধ ঘাট ব্যবহারকারীরা।
বিআইডব্লিউটিএর অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী মো. সাইদুর রহমান জানান, চ্যানেল সচলের চেষ্টা চলছে। এ রুটের ১৭টি ফেরির চারটি অন্যত্র পাঠানো হয়েছে। বাকি ১৩টি অলস বসে আছে।
শিমুলিয়া ঘাটের বিআইডব্লিউটিসি’র উপমহাব্যবস্থাপক (এজিএম) মো. শফিকুল ইসলাম জানান, চ্যানেলে বিপর্যয়ের কারণে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে অনিদির্ষ্টকালের জন্য ফেরি চলাচল বন্ধ থাকবে। এই রুটে নাব্য সংকটসহ নানা সমস্যার কারণে দীর্ঘদিন ধরে ফেরি চলাচল ব্যাহত হচ্ছে। এর আগে নদী ভাঙনে শিমুলিয়া ঘাটের ৩ ও ৪ নম্বর ফেরিঘাট বিলীন হয়ে যায়। বালুর বস্তা ফেলে কোনোমতে ঘাট রক্ষার চেষ্টা করা হচ্ছে। ৩ নম্বর ফেরি ঘাট পুনরায় স্থাপন করা হলেও ৪ নম্বর ফেরি ঘাট এখনও স্থাপন করা হয়নি। অন্যদিকে, ৩ নম্বর ফেরি ঘাটের পাশে শুক্রবার (১১ সেপ্টেম্বর) রাতে আবার অব্যাহত ভাঙন শুরু হয়। সে কারণে শনিবার থেকে ৩ নম্বর ফেরি ঘাট বন্ধ রাখা হয়েছিল।