বৃহস্পতিবার, ২২ এপ্রিল, ২০২১, ৯ বৈশাখ, ১৪২৮, ৯ রমজান, ১৪৪২
বৃহস্পতিবার, ২২ এপ্রিল, ২০২১

বঙ্গবন্ধু শৈশবকাল থেকেই শিশু অধিকার সর্ম্পকে সচেতন ছিলেন-মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী

বঙ্গবন্ধুর প্রতি শ্রদ্ধা জানাচ্ছেন মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী

গোপালগঞ্জ : জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মদিন উপলক্ষে বাংলাদেশসহ বিশের সকল শিশুদের অভিনন্দন জানিয়ে মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা এমপি বলেছেন, বঙ্গবন্ধু শৈশবকাল থেকেই শিশু অধিকার সর্ম্পকে সচেতন ছিলেন। যার জন্য বঙ্গবন্ধু সংবিধানে শিশু অধিকার আইন প্রণয়ন করেছিলেন। জাতিসংঘ ১৯৮৯ সালে শিশু আইন প্রণয়ন করলেও তারও ১৫ বছর আগে ১৯৭৪ সালে বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশে এ আইন প্রণয়ন করেছিলেন। এর মাধ্যমেই বোঝা যায় বঙ্গবন্ধু শিশুদেরকে কি পরিমান ভালবাসতেন এবং সুনাগরিক হিসাবে গড়ে তুলেতে কতোটা সচেতন ছিলেন।

আজ মঙ্গলবার (১৬ মার্চ) দুপুরে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, বঙ্গবন্ধু শুধুমাত্র বাংলাদেশের শিশুদের জন্য চিন্তা করেননি, তিনি বিশ্বের সকল শিশুদের জন্য চিন্তা করেছেন। আগামীকাল ১৭ মার্চ টুঙ্গিপাড়ায় নানা আয়োজনে বঙ্গবন্ধুর জন্মশত বার্ষিকী পালন করা হবে।

এর আগে, বঙ্গবন্ধুর সমাধি সৌধ বেদীতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে গভীর শ্রদ্ধা জানান মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা এমপি। পরে বঙ্গবন্ধু ও তাঁর পরিবারের শহীদ সদস্যদের রুহের মাগফেরাত কামনা করে ফাতেহা পাঠ ও বিশেষ মোনাজাতে অংশ নেন। পরে বঙ্গবন্ধুর সমাধী সৌধ কমপ্লেক্সে চত্ত্বরে বঙ্গবন্ধুর ১০১ তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে কেক কাটা হয়। পরে একে অপরকে কেক খাইয়ে দেন।

এ সময় মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব মো: সায়েদুর ইসলাম, বাংলাদেশ শিশু একাডেমির মহাপরিচালক জ্যোতি লাল কুরী, রজেহলা প্রশাসক শাহিদা সুলতানা, টুঙ্গিপাড়া পৌরসভার মেয়র শেখ তোজাম্মেল হক টুটুল, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ সাইফুল ইসলাম, জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নাসিমা আক্তার রুবেলসহ স্থানীয় নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।


error: Content is protected !!